Home আর্কাইভ এস আলমের মালিকানায় যাওয়ার গুঞ্জনে চাঙা সিঅ্যান্ডএ’র শেয়ার

এস আলমের মালিকানায় যাওয়ার গুঞ্জনে চাঙা সিঅ্যান্ডএ’র শেয়ার

SHARE
NGIC-Logo
Beximco-Pharma
Ibn-Sina-Logo
c & a
Senior Staff Reporter (SM)

Published: আগস্ট ১১, ২০১৭ ১০:৫৭:৫৭
133
0

সম্প্রতি বেশ আলোচনায় রয়েছে পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত সিঅ্যান্ডএ টেক্সটাইল। পারিবারিক দ্বন্দ্ব ডুবতে থাকা প্রতিষ্ঠানটির ‘মালিকানা বদল’ হচ্ছে- এমন খবর বিনিয়োগকারীদের মুখে মুখে। আর এর জের ধরে ঊর্ধ্বমুখী রয়েছে প্রতিষ্ঠানটির শেয়ারের দর। একই সঙ্গে প্রতিদিনই প্রতিষ্ঠানটির দুই থেকে তিন কোটি শেয়ারের হাতবদল হচ্ছে। গতকাল বৃহস্পতিবার এ প্রতিষ্ঠানের প্রায় সাড়ে চার কোটি শেয়ার হাতবদল হয়েছে, যা প্রতিষ্ঠানটির গত দুই বছরের মধ্যে সর্বোচ্চ শেয়ার কেনাবেচার রেকর্ড। জানা গেছে, শিগগিরই এ প্রতিষ্ঠানের মালিকানা চলে যাচ্ছে এস আলম গ্রুপের হাতে।
 
প্রতিষ্ঠানটির সাম্প্রতিক লেনদেন চিত্রে দেখা যায়, মালিকানা পরিবর্তনের খবরে এক মাসেরও কম সময়ে প্রতিটি শেয়ার ১১ টাকা ৩০ পয়সা থেকে বেড়ে ১৪ টাকায় লেনদেন হচ্ছে। আর এ সময়ে প্রতিদিনই প্রায় দুই কোটি শেয়ার লেনদেন হচ্ছে। গতকাল প্রতিষ্ঠানটির চার কোটি ২৯ লাখ শেয়ার কেনাবেচা হয়। এর আগের কার্যদিবসে লেনদেন হয় দুই কোটি ৫৩ লাখ শেয়ার। এর আগের কার্যদিবসে প্রতিষ্ঠানটির প্রায় সাড়ে তিন কোটি শেয়ার কেনাবেচা হতে দেখা যায়।
 
এ বিষয়ে জানতে চাইলে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক কোম্পানিটির একজন কর্মকর্তা বলেন, ‘সম্ভবত প্রতিষ্ঠানটির মালিকানায় পরিবর্তন আসছে। একটি বড় গ্রুপের সঙ্গে কথাও হয়েছে। তবে বিষয়টি চ‚ডান্ত না হওয়া পর্যন্ত কিছুই পরিষ্কার করে বলা সম্ভব নয়।’
 
জানা যায়, ২০১৫ সালে তালিকাভুক্ত এ প্রতিষ্ঠানটির বর্তমান ব্যবসায়িক অবস্থা খুবই নাজুক। পারিবারিক দ্বন্দ্বের জের ধরে প্রতিষ্ঠানটির এ ভগ্নদশা। মোহাম্মদ মোর্শেদ ফ্যামিলিটেক্স ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন ও রোকসানা মোর্শেদ ফ্যামিলিটেক্স পরিচালকের পাশাপাশি সিঅ্যান্ডএ টে·টাইলে এমডি হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন। তারা স্বামী-স্ত্রী। প্রতিষ্ঠানটি যখন বাজারে তালিকাভুক্ত হয় তখন তাদের মধ্যে ভালো সম্পর্ক থাকলেও পরবর্তী সময়ে সম্পর্কে ফাটল ধরে। ফলে কেউই প্রতিষ্ঠানটির প্রতি মনোযোগী হতে পারছেন না। যার প্রত্যক্ষ প্রভাব পড়েছে এর ব্যবসায়। আরএর ফল ভোগ করতে হচ্ছে সাধারণ বিনিয়োগকারীদের।
 
সমর্থিত সূত্রে জানা যায়, এ অবস্থার নিরসনে তারা প্রতিষ্ঠানের মালিকানা পরিবর্তন করতে যাচ্ছেন ।এ পরিপ্রেক্ষিতে প্রতিষ্ঠানটির শেয়ার কিনে নেওয়ার জন্য এগিয়ে এসেছে এস আলম গ্রুপ। সূত্র জানায়, মোহাম্মদ মোর্শেদ ও রোকসানা মোর্শেদের সঙ্গে এস আলম গ্রুপের কর্ণধার সাইফুল আলম মাসুদের পারিবারিক সম্পর্ক রয়েছে। সে কারণেই প্রতিষ্ঠানের শেয়ার কিনে নিতে আগ্রহী হচ্ছেন তিনি।
 
সূত্রমতে, শিগগির সিঅ্যান্ডএ টে·টাইলের শেয়ার ব্লক মার্কেটের মাধ্যমে কিনে নেবে এস আলম গ্রুপ। এরপর প্রতিষ্ঠানটির ব্যবস্থাপনায় আসবে গ্রুপটি। আগের বছরের চেয়ে অর্ধেক মুনাফা কমে আসা সিঅ্যান্ডএ টেক্সটাইল পরিশোধিত মূলধনের পরিমাণ ২৩৯ কোটি ৩২ লাখ টাকা। ২০১৬ সালে
 
কোম্পানিটি বিনিয়োগাকারীদের ১০ শতাংশ বোনাস ডিভিডেন্ড দেয়। এর আগের দুই বছর প্রতিষ্ঠানটি লভ্যাংশ প্রদান করেছে যথাক্রমে ১১ ও ১২ শতাংশ করে। এদিকে প্রতিষ্ঠানটির মোট শেয়ারের মধ্যে ২২.১৪ শতাংশ শেয়ার রয়েছে পরিচালকদের কাছে। এছাড়া ৬২.১৯ শতাংশ শেয়ার ধারণ করছেন সাধারণ বিনিয়োগকারীরা। বাকি ১৫.৬৭ শতাংশ শেয়ার রয়েছে প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগকারীদের কাছে।
BD-Lamp-Logo
Phonix-logo-270