Home bd news বাংলাদেশি নাগরিকত্ব দেয়া হলো বৃটিশ নাগরিক লুসি হেলেনকে

বাংলাদেশি নাগরিকত্ব দেয়া হলো বৃটিশ নাগরিক লুসি হেলেনকে

Helen
Staff Reporter (U)

Published: 15:20:59
38
0

image_pdfimage_print

কর্পোরেট সংবাদ ডেস্কঃ যুদ্ধাহত মুক্তিযোদ্ধাদের সেবা দানকারী বৃটিশ নাগরিক লুসি হেলেন ফ্রান্সিস হল্টকে নাগরিকত্ব দিয়েছে বাংলাদেশ সরকার। গতকাল আন্তঃমন্ত্রণালয়ের সভায় এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।

বরিশালে লুসির সাথে দেখা করে এখবর জানান জেলা প্রশাসক মো. হাবিবুর রহমান। তিনি জানান, খুব শিগগিরই এ ব্যাপারে সরকারি আদেশ জারি করা হবে। এসময় এ লুসি তার প্রতিক্রিয়া জানাতে গিয়ে আবেগাপ্লুত হয়ে পড়েন।

পরে প্রধানমন্ত্রীর প্রতি কৃতজ্ঞতা জানান তিনি। স্বাধীনতার পর থেকে যুদ্ধাহত মুক্তিযোদ্ধাদের স্বাস্থ্যসেবার পাশাপাশি আর্থিক অস্বচ্ছল ও দুস্থদের পাঠদানে সহযোগিতা করে যাচ্ছেন লুসি।

উল্লেখ্য, কুড়ি বছরের তরুণি লুসি হেলেন ক্যাথলিক চার্চের নান হয়ে এদেশে এসেছিলেন সেই ১৯৫০ সালে। তখন কে ভেবেছিল তিনি আর কখনোই ফিরে যাবেন না নিজের দেশে। এই দরিদ্র, দীনহীন দেশের মানুষকে বড্ড ভালোবেসেছিলেন এই বৃটিশ তরুণি। একবছর, দুবছর করে শেষ পর্যন্ত এই মাটিতেই রয়ে গেলেন কুড়িটা বছর। তারপর এলো এমাটির সবচাইতে রক্তাক্ত সময়-১৯৭১।

ব্রিটেনে থাকা পরিবারের সদস্যরা মাথা কুটলেন, বললেন, এইবেলা ফিরে আসো। কিন্তু এদেশের সেই চরম দুঃখমাখা দিনে লুসি আমাদেরকে ছেড়ে গেলেন না, যেতে পারলেন না। জীবনের ঝুঁকি নিয়ে যোগ দিলেন যশোরের ফাতেমা হাসপাতলে। যুদ্ধের সেই দিনগুলোতে যখন ডাক্তার-নার্সের সংকট, লুসি সেবিকা হলেন নির্যাতিত মানুষের, যুদ্ধাহত মুক্তিযোদ্ধাদের গোপন চিকিৎসার। লন্ডনে চিঠি লিখলেন বারবার তাঁর সব পরিচিতজনকে, তুলে ধরলেন পূর্ববাংলায় পাকিস্তানি বাহিনীর নৃশংস নির্যাতনের খবর। জনমত গঠনে তাঁদেরকে আবেদন করলেন বারবার।

তারপর? একদিন এ দেশ স্বাধীন হলো। পূর্বপাকিস্তানের পরিচয়কে ফুৎকার দিয়ে রক্তে ভেজা বাংলাদেশের সবুজ পতাকা পতপত করে উড়তে থাকল মুক্ত আকাশে। সিস্টার লুসি ফিরে গেলেন বরিশালের চার্চে।

এদেশকে লুসি দিয়েছেন তাঁর যৌবন, তাঁর পৌঢ়ত্ব, তাঁর গোটা জীবন। এ মাটিতে কাটিয়েছেন ৭৭টি বছর। একশ’র কাছাকাছি পৌঁছে গেছেন এখন। বড় সাধ তাঁর এই দেশের নাগরিক হয়ে এমাটিতে শয্যা নেবেন।

Print Friendly, PDF & Email