হোম আন্তর্জাতিক ভারতে বন্যায় মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়াল ২২৭

ভারতে বন্যায় মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়াল ২২৭

সংবাদটি প্রকাশিত হয়েছে : at 8:50 am
110
0

কর্পোরেট সংবাদ ডেস্ক: ভারতে প্রাকৃতিক বিপর্যয়ে মৃত্যুর সংখ্যা দু’শো ছাড়িয়ে গেল। সোমবার রাত পর্যন্ত সরকারি ভাবে মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ২২৭। বন্যা, ভূমিধসের পাশাপাশি বজ্রপাতও এদিন একাধিক জনের প্রাণ কেড়েছে। কেরালা, গুজরাট, অন্ধ্রপ্রদেশ, মহারাষ্ট্রের সঙ্গে জুড়েছে উত্তরাখণ্ড ও পশ্চিমবঙ্গ।

মৃত্যু ও ক্ষয়ক্ষতির নিরিখে সবথেকে বড় বিপর্যয় এখনও পর্যন্ত কেরালায়। এই রাজ্যে সরকারি ভাবে মৃতের সংখ্যা এখন ৮০। ভূমিধসে বিধ্বস্ত রাজ্যের মালাপ্পুরম ও ওয়ানাড়ে সোমবার আরও কয়েকটি দেহ উদ্ধার হওয়ায়, মৃতের সংখ্যা ৮০ ছুঁয়েছে। এখনও ৫৮ জনের খোঁজ নেই। গত চার দিনে ৮০টি ভূমিধস হয়েছে। নিরাশ্রয় ৩ লক্ষ মানুষ। কেরালার কৃষিমন্ত্রী ভিএস সুনীল কুমার জানিয়েছেন, ১৮ হাজার হেক্টর জমির ফসল নষ্ট হয়েছে। ক্ষতিগ্রস্ত ৮১ হাজার কৃষক। ক্ষতির আর্থিক অঙ্ক ₹৮০০ কোটি।

বর্তমান এই বিপর্যয়ের মধ্যে এদিন মৌসম ভবন কেরালার উদ্বেগ বাড়িয়ে ঘোষণা করেছে, আগামী কয়েক ঘণ্টায় ভারী থেকে অতি ভারী বৃষ্টিপাত হতে চলেছে।

শুধু কেরালা নয়, কর্নাটক, কঙ্কন অঞ্চল, ওডিশা ও মহারাষ্ট্রের বিদর্ভে ১৩ ও ১৪ অগস্ট অতি ভারী বৃষ্টিপাত হবে। এ ছাড়া ছত্তীসগঢ়, মধ্যপ্রদেশ ও পূর্ব রাজস্থানকে সতর্ক করে জারি হয়েছে রেড অ্যালার্ট।

ভারী বৃষ্টির কারণে দেরাদুনের চামোলিতে ভূমিধসে প্রাণ গিয়েছে ৬ জনের। মৃতদের এই তালিকায় এক শিশুও রয়েছে। বাড়ি ভেঙে পড়লে, সেই ধ্বংসস্তূপের মধ্যেই চাপা পড়ে মারা যায় শিশুটি। হরিদ্বারের গঙ্গা ও পিথোরাগড়ের কালী নদীর জল বিপদসীমার সামান্য নীচ দিয়ে বইছে। জম্মু-কাশ্মীরের রেসাই জেলায় ভূমিধসে একই পরিবারের তিন জন মারা গিয়েছেন।

পশ্চিমবঙ্গে রবিবার থেকে কমপক্ষে ১৬ জন মারা গিয়েছেন বজ্রপাতে। পুরুলিয়া, পূর্ব মেদিনীপুর, হুগলি-সহ পাঁচ জেলা মিলিয়ে এই ১৬ জন মারা গিয়েছেন। এর মধ্যে চার জনই কৃষক।

গুজরাটের কচ্ছ থেকে ১২৫ জনকে উদ্ধার করেছে ভারতীয় বায়ুসেনার উদ্ধারকারী দল। বন্যায় রাস্তা ভেসে যাওয়ায়, এঁরা আটকে পড়েছিলেন। গত কয়েক দিন ধরেই অবিরাম বর্ষণ হয়ে চলেছে গুজরাটের সৌরাষ্ট্র ও কচ্ছ অঞ্চলে। এ পর্যন্ত ৩১ জন মারা গিয়েছেন।

তবে, নতুন করে বৃষ্টি না-হওয়ায় কর্নাটকে বন্যাপরিস্থিতির উন্নতি হয়েছে। মৃতের সংখ্যা আর বাড়েনি। ৪৮ জনেই আটকে রয়েছে। এখনও নিরাশ্রয় ৫ লক্ষ ৮১ হাজার মানুষ। ত্রাণের জন্য কেন্দ্রের কাছে ৫০০০ কোটি টাকা চেয়ে চিঠি লিখেছেন প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী দেবে গৌড়া।