হোম আর্কাইভ মেসিবিহীন বার্সার স্বপ্ন ভঙ্গ

মেসিবিহীন বার্সার স্বপ্ন ভঙ্গ

সংবাদটি প্রকাশিত হয়েছে : at 12:00 pm
107
0

স্পোর্টস ডেস্ক: জানুয়ারির ব্যস্ত সূচির কারণে লিওনেল মেসি, লুই সুয়ারেজ, জেরার্ড পিকে ও জর্দি আলবাকে বিশ্রামে রেখে একাদশ সাজিয়েছিলেন আর্নেস্তো ভালভার্দে। কোপা ডেল রে নকআউট পর্বের প্রথম লেগে হোঁচট খেয়েছে বদলে যাওয়া বার্সেলোনা। লেভান্তের মাঠে ২-১ গোলে হেরে এসেছে আসরটির বর্তমান চ্যাম্পিয়ন বার্সা।

নিয়মিত খেলোয়াড়দের বিশ্রামের কারণে ম্যাচে সুযোগ হয়েছিল দুই তরুণ হুয়ান মিরান্দা ও চুমি ছাড়াও ধারে আসা কলাম্বিয়ান ডিফেন্ডার জেইসন মুরিলোর। ২ ডিসেম্বরের পর এ ম্যাচ দিয়ে বার্সার একাদশে ফিরেছেন ব্রাজিলিয়ান প্লে-মেকার ফিলিপে কুতিনহো। গেল অক্টোবরের পর ঘরোয়া আসরে গোলও পেয়েছেন ব্রাজিলিয়ান তারকা। তা অবশ্য দলের পতন রোধে যথেষ্ট ছিল না।

Spellbit Limited

ম্যাচের ১৮ মিনিটের মধ্যেই ২-০ গোলে এগিয়ে যায় লেভান্তে। ৪ মিনিটে এরিক কাবাকো গোল করার পর ১৮ মিনিটে স্কোরশিটে নাম লেখান রিয়াল মাদ্রিদ থেকে ধারে খেলতে আসা বোরিয়া মায়োরাল। ৮৫ মিনিটে পেনাল্টি থেকে বার্সেলোনা অ্যাওয়ে গোলের স্বস্তি পায় কুতিনহোর কল্যাণে।

‘ম্যাচে তাদের (বার্সেলোনার) সেরা খেলোয়াড়রা ছিলেন না। তার পরও এ জয়ে আমি গর্বিত’— বলছিলেন লেভান্তে কোচ পাকো লোপেজ। যোগ করেন, ‘যেকোনো প্রতিযোগিতা থেকে বার্সেলোনাকে বিদায় করা কঠিন। আমরা ম্যাচটা জিততে চেয়েছিলাম। আগামী সপ্তাহে একই কৌশলে খেলব, যেভাবে এ ম্যাচ জিতেছি।’

অ্যাওয়ে গোলের কারণে ফিরতি লেগে ক্লিনশিট রেখে ন্যূনতম ব্যবধানে জিতলেই পরবর্তী পর্বে যাবে বার্সা। ম্যাচের শেষ দিকে এসে পেনাল্টি থেকে গোল হজম করায় কিছুটা হতাশ পাকো লোপেজ। ফিরতি লেগের আগে লেভান্তে কোচ বলেছেন, ‘শেষ দিকের পেনাল্টি ছিল হতাশার। কারণ এটা প্রতিপক্ষ দলকে বড় সুযোগ এনে দিয়েছে। স্কোরলাইন ৩-০ করা প্রত্যাশিত ছিল। তার পরও আমি খুশি। দেখি ফিরতি লেগে আমাদের জন্য কী অপেক্ষা করছে।’

বার্সার একাদশে অনিয়মিত কুতিনহো। তার পরিবর্তে আক্রমণভাগে ফরাসি উইঙ্গার ওসমান ডেম্বেলের ওপরই বেশি আস্থা বার্সা কোচের।

বৃহস্পতিবার ন্যু ক্যাম্পে দ্বিতীয় লেগে ফের মুখোমুখি হচ্ছে দুই দল। কোয়ার্টার ফাইনালের টিকিট পেতে হলে ওই ম্যাচে কেবল জিতলেই হবে না, বার্সেলোনাকে মেলাতে হবে হোম ও অ্যাওয়ে গোলের হিসাবও। ফুটমোব ডটকম

 

আরও পড়ুন: হ্যাটট্রিক করে বিশ্বরেকর্ড আলিসের