Home কর্পোরেট সংবাদ জাতীয় জ্বালানি নিরাপত্তা দিবস, ২০১৮ পালিত

    জাতীয় জ্বালানি নিরাপত্তা দিবস, ২০১৮ পালিত

    Published:August 9, 2018
    Petrobangla


    Published: 20:03:28
    96
    0

    নিজস্ব প্রতিবেদক: জ্বালানি সাশ্রয়ের ওপর সর্বাধিক গুরুত্ব প্রদান করে পালিত হল জাতীয় জ্বালানি নিরাপত্তা দিবস, ২০১৮। এ উপলক্ষে আজ ৯ আগস্ট, ২০১৭ বৃহস্পতিবার পেট্রোবাংলার ড. হাবিবুর রহমান অডিটরিয়াম (পেট্রোসেন্টার, ৩ কাওরান বাজার বা/এ, ঢাকা)-এ জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ বিভাগের উদ্যোগে আয়োজিত সেমিনারে উপস্থিত আলোচকবৃন্দ মূল্যবান গ্যাসসহ অন্যান্য জ্বালানি ব্যবহারের ক্ষেত্রে অপচয় রোধ করে যথাযথ ব্যবহার ও উদ্ভাবনী ক্ষমতা প্রয়োগের মাধ্যমে জ্বালানি সাশ্রয়ের ওপর সর্বাধিক গুরুত্ব আরোপ করেন।

    জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ বিভাগের সচিব আবু হেনা মো: রহমাতুল মুনিম এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সেমিনারে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ বিষয়ক উপদেষ্টা ড. তৌফিক-ই-ইলাহী চৌধুরী, বীর বিক্রম।

    বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ পেট্রোলিয়াম কর্পোরেশন (বিপিসি)-এর চেয়ারম্যান মো: আকরাম আল হোসেন, পেট্রোবাংলার চেয়ারম্যান আবুল মনসুর মোঃ ফয়েজউল্লাহ, এনডিসি।

    সেমিনারের শুরুতে ১৫ আগস্ট জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানসহ তাঁর পরিবারের নিহত সদস্যদের স্মরণে এক মিনিট নীরবতা পালন করা হয়। সেমিনারে Oil & Gas Exploration Opportunities in the Offshore Areas of Bangladesh under Production Sharing Contract (PSC) শীর্ষক প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন পেট্রোবাংলার মহাব্যবস্থাপক (কন্ট্রাক্ট) শাহনেওয়াজ পারভেজ এবং ’ পেট্রোলিয়াম পাইপলাইন নেটওয়ার্ক ইন বাংলাদেশ’ শীর্ষক প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন পদ্মা অয়েল কোম্পানী লিমিটেড এর মহাব্যবস্থাপক (প্রকল্প) মো: আমিনুল হক। সেমিনারে বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ মন্ত্রণালয়, পেট্রোবাংলা ও এর অধীনস্থ কোম্পানিসমূহের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

    প্রসঙ্গত, স্বাধীন ও সার্বভৌম বাংলাদেশের স্থপতি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান স্বাধীনতার পর জাতীয় অগ্রগতির লক্ষ্যে যে সকল দূরদর্শী সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেছিলেন তন্মধ্যে জাতীয় জ্বালানির নিরাপত্তার বিষয়টি নিশ্চিতকরণ ছিল অন্যতম।

    দেশের অর্থনীতির ভিতকে মজবুত করে সোনার বাংলা গড়ার প্রত্যয়ে জ্বালানি নিরাপত্তা নিশ্চিতকল্পে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ১৯৭৫ সালের ৯ আগস্ট তৎকালীন ব্রিটিশ তেল কোম্পানি শেল অয়েল এর নিকট থেকে তিতাস, হবিগঞ্জ, রশিদপুর, কৈলাশটিলা ও বাখরাবাদ-এ ৫টি গ্যাসক্ষেত্র নামমাত্র ৪.৫ মিলিয়ন পাউন্ড স্টার্লিং মূল্যে ক্রয় করে রাষ্ট্রীয় মালিকানায় হস্তান্তরের কার্যক্রম সম্পন্ন করেন।

    এ গ্যাস ক্ষেত্রসমূহকে রাষ্ট্রীয় মালিকানায় নেয়ার পর থেকে অদ্যাবধি দেশের অর্থনৈতিক বিকাশে এবং জ্বালানি নিরাপত্তার ক্ষেত্রে অতুলনীয় ভূমিকা রেখে চলছে। জাতির পিতার উন্নয়ন ভাবনার পথ অনুরসরণ করে তাঁরই সুযোগ্য কন্যা মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বাধীন সরকার ২০১০ সাল হতে এ দিবসটিকে ‘জাতীয় জ্বালানি নিরাপত্তা দিবস’ হিসেবে উদ্যাপনের সিদ্ধান্ত গ্রহণ করে। এ দিবসটি উদ্যাপনের মাধ্যমে জ্বালানি নিরাপত্তায় বঙ্গবন্ধুর অবদানের প্রতি শ্রদ্ধা প্রদর্শনের পাশাপাশি দেশের উন্নয়নে জ্বালানি খাতের পরিকল্পনা বাস্তবায়ন সংক্রান্ত কার্যক্রমের প্রচারণা এবং জ্বালানির সাশ্রয়ী ব্যবহারের গুরুত্ব তুলে ধরে জনসচেতনতা বৃদ্ধি করা সম্ভব হচ্ছে।

    This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.